Tazakhobor.com

news blog logo
news menu leftnews menu right

সর্বশেষ খবর

২৪ ঘন্টায় সর্বাধিক পঠিত



Twiter

‘লেবেল প্লেয়িং ফিল্ড’ ছাড়া সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব নয় : লর্ড এব্যুরী Print E-mail
Written by তাজাখবর.কম   
Friday, 01 November 2013 20:41
যুক্তরাজ্যের হাউস অব লর্ডসের সদস্য লর্ড এব্যুরী বলেছেন, বাংলাদেশে একটি অবাধ, সুষ্ঠু এবং নিরপেক্ষ নির্বাচন করতে সব দলের জন্য সমান সুযোগ তৈরী করা দরকার এজন্য একটি ’লেবেল প্লেয়িং ফিল্ড’ তৈরী করা অপরিহার্য। সম্প্রতি লন্ডনের ওভালে তার নিজ বাড়িতে জাস্ট নিউজ সম্পাদক মুশফিকুল ফজল আনসারীকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি এমন মন্তব্য করেন।

বাংলাদেশের চলমান রাজনৈতিক অবস্থা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, এই মুহূর্তে দেশের সকলের দৃষ্টির কেন্দ্রবিন্দু হচ্ছে আগামী নির্বাচন। আসছে নির্বাচনকে যাতে সফল করা যায় এবং দেশের সকল নাগরিক যাতে তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করতে পারে সেটা নিশ্চিত হওয়া প্রয়োজন।
নির্দলীয় সরকার ব্যবস্থা পুনঃপ্রবর্তনের বিরোধী দলের দাবি প্রসঙ্গে যুক্তরাজ্যের অল পার্টি পার্লামেন্টারী গ্রুপের ভাইস চেয়ারম্যান লর্ড এব্যুরী বলেন, আগামী নির্বাচনকে ঘিরে দেশের প্রধান দু’রাজনৈতিক দল এখনো বিপরীত মুখী অবস্থানে রয়েছে। আমি মনে করি বাংলাদেশের রাজনৈতিক সমস্যা কাটছে না বরং তা ক্রমেই বাড়ছে। যা দেশকে সংঘাতের দিকে ঠেলে দিচ্ছে। দেশের দুই প্রধান রাজনৈতিক দল এক সাথে বসে নির্বাচনকালীন সরকার ব্যবস্থা নিয়ে একটি গ্রহনযোগ্য সমাধানে পৌঁছানো উচিত। তিনি বলেন, নির্বাচনকালীন সরকার এমন হতে হবে যারা নির্বাচনে কোনো ধরনের প্রভাব বিস্তার করবে না।

বাংলাদেশের মানবাধিকার প্রসঙ্গে অল পার্টি হিউম্যান রাইটস গ্রুপের ভাইস চেয়ারম্যান এব্যুরী বলেন, বাংলাদেশে মতো প্রকাশের স্বাধীনতা বাধাগ্রস্থ হচ্ছে। যারা স্বাধীনভাবে কথা বলতে চাইছে সরকার তাদেরকে নানাভাবে হয়রানী করছে। সংবাদপত্র প্রকাশনা বন্ধ, সম্পাদককে কারাগারে প্রেরণ, ব্লগারদের গ্রেফতার এগুলো গণতান্ত্রিক ব্যবস্থার পরিপন্থি।

বিচার বহির্ভূত হত্যাকান্ডের তীব্র সমালোচনা করে লর্ড এব্যুরী বলেন, র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ান (র‌্যাব)’র অনেক কার্যক্রমই প্রশ্নবিদ্ধ। ক্রসফায়ারের নামে মানুষ হত্যা কোনো সভ্য সমাজে চিন্তা করা যায় না। এ বিষয়গুলোর সুষ্ঠু তদন্ত হওয়ার প্রয়োজন বলে মত দেন তিনি।

৪০ বছর ধরে হাউস অব লর্ডসের সদস্য পদে থাকা অশীতিপর লর্ড এব্যুরী বাংলাদেশের যুদ্ধাপরাধীদের বিচার প্রক্রিয়া সম্পর্কে বলেন, ৭১ সালের ঘটনা প্রবাহ আমার পরিষ্কার মনে আছে। ঐ সময়ে মানবতার বিরুদ্ধে যে সকল অপরাধ সংঘটিত হয়েছে তা বিচারের দাবি রাখে। তবে বর্তমান বিচারিক প্রক্রিয়া ক্রুটিপূর্ণ এবং স্বচ্ছ নয় বলে মন্তব্য করেন তিনি। এব্যুরী বলেন, অনেক ক্ষেত্রে পর্যাপ্ত প্রমাণাদী ছাড়াই দন্ডিত করা হয়েছে। বিচারিক প্রক্রিয়ায় আন্তর্জাতিক মানদন্ড অনুসরণ করা হয়নি বলেও মত দেন তিনি।

শান্তি চুক্তি বাস্তবায়নের তাগিদ দিয়ে পার্বত্য চট্টগ্রাম কমিশনের ভাইস চেয়ারম্যান লর্ড এব্যুরী বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে এ বিষয়ে আমার একাধিকবার বৈঠক হয়েছে। তিনি আমাকে একাধিকবার বলেছেন- এমনকি আওয়ামী লীগের নির্বাচনী ইশতেহারের ঘোষণায়ও শান্তিচুক্তির পূর্ণ বাস্তবায়নের প্রতিশ্রুতি ছিলো। কিন্তু পরিতাপের বিষয়- প্রতিশ্রুতির কোনো বাস্তবায়ন এখন পর্যন্ত হয়নি।

১৯৯৭ সালে দেশের পার্বত্য এলাকায় শান্তির জন্য চুক্তি স্বাক্ষর করলেও সেখানে প্রায় সময়ই আক্রমন-প্রতি আক্রমনের ঘটনা ঘটছে উল্লেখ করে বাংলাদেশের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ লর্ড এব্যুরী বলেন, সর্বশেষ চট্টগ্রামের রামুতে ঘটে যাওয়া সামপ্রদায়িক হামলা অত্যন্ত উদ্বেগের বিষয়। তার চেয়েও উদ্বেগের বিষয় হচ্ছে এ ধরণের কর্মকান্ড বিচারের আওতায় না আসা।

ঢাকার অদুরে সাভারে ঘটে যাওয়া সমপ্রতি রানা প্লাজা ধসে হাজার হাজার শ্রমিকের মৃত্যু প্রসঙ্গে তিনি বলেন, এটা মানুষের সৃষ্টি এক ধরনের বিপর্যয়। দেশটির পোশাক শ্রমিক ও ভবনের নিরাপত্তায় সুনির্দিষ্ট কোনো নিয়ম-নীতি নেই এবং থাকলেও তা অনুসরণ করা হচ্ছে না।
তিনি বলেন, সরকার তার অবস্থান ধরে রাখতে অক্ষম হবার কারণেই কারখানায় বারবার এধরনের বিপর্যয়ের ঘটনা ঘটছে। এটি বন্ধে সতর্কতা ও পদক্ষেপ নেয়া প্রয়োজন।

বাংলাদেশ ও যুক্তরাজ্যের রাজনৈতিক সম্পর্কের কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, আমি মনে করি বাংলাদেশের সঙ্গে যুক্তরাজ্যের খুবই ভালো সম্পর্ক। বাংলাদেশের একটি বড় অংশ যুক্তরাজ্যে বসবাস করে যারা এ দেশের মঙ্গল এবং অথনৈতিক উন্নয়নের জন্য সবসময় অবদান রেখে চলছে। এছাড়া তারা এ দেশের রাজনীতি এবং অর্থনীতি দুটোক্ষেত্রেই অবদান রাখছে। যুক্তরাজ্যের সংস্কৃতিতেও বাংলাদেশিরা প্রভাবিত করছে বলেও দাবী করেন এই রাজনীতিবিদ। এ সময় তিনি যুক্তরাজ্যের মূলধারার রাজনীতিতে বাংলাদেশীদের ভূমিকার প্রশংসা করেন।

লর্ড এব্যুরী বাংলাদেশের শিশুদের পোলিও নির্মূল টিকাদান কর্মসূচিতে কাজ করে যাচ্ছেন। এ সংক্রান্ত একটি সংসদীয় কমিটির ভাইস চেয়ারম্যান হিসাবে দায়িত্ব পালন করছেন তিনি।


 



Tazakhobor.

Privacy Policy  Contact Us